সংবাদ শিরোনাম
  • রাত ২:৪২ | ২৪শে এপ্রিল ২০১৯ ইং , ১১ই বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ , ১৭ই শাবান ১৪৪০ হিজরী

কাল ঈদগাহে জানাজা, পরশু চট্টগ্রামে দাফন

এনএস নিউজ রিপোর্ট।
ব্যান্ডতারকা আইয়ুববাচ্চুর নামাজেজানাজা কাল শুক্রবার বাদ জুমা জাতীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিতহবে।
আইয়ুব বাচ্চুর প্রতি সর্বসাধারণের শেষশ্রদ্ধা জানানোর জন্য কাল সকাল সাড়ে১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টাপর্যন্ত তাঁর মরদেহ রাখা হবে কেন্দ্রীয় শহীদমিনারে।
শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে আইয়ুববাচ্চুর মরদেহনেওয়া হবে জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে।সেখানে জানাজা শেষে আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ নেওয়া হবে চট্টগ্রামের পৈতৃক নিবাসে। সেখানে শনিবারমায়ের কবরের পাশে চিরনিদ্রায়শায়িত হবেন আইয়ুববাচ্চু।
আজ বৃহস্পতিবারসকালে জনপ্রিয়সংগীতশিল্পী আইয়ুব বাচ্চু ইন্তেকালকরেন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৬ বছর।
আইযুব বাচ্চুর মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতিআবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা,বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ,বিএনপির মহাসচিব মির্জাফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ রাজনৈতিক অঙ্গনের অনেকেই শোক প্রকাশ করেছেন।
জানা গেছে, আজ সকালে শরীরখারাপ লাগলে আইয়ুব বাচ্চুর ব্যক্তিগত গাড়িচালক তাঁকেনিয়ে স্কয়ার হাসপাতালের উদ্দেশে রওনা দেন।গাড়িতে তোলার সময়ইতাঁর মুখ থেকে ফেনা বের হচ্ছিল। সকাল সোয়া নয়টার দিকে তাঁকেস্কয়ার হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরে তাঁকেমৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসকেরা।
চিকিৎসকেরা জানান, হৃদ্রোগেআক্রান্ত হয়ে আইয়ুব বাচ্চুর মৃত্যুহয়েছে। সকাল সাড়ে ৮টারদিকে তিনি হৃদ্রোগে আক্রান্ত হনবলে ধারণা করাহচ্ছে। সকাল সোয়া ৯টার দিকে তিনি মারাযান।
স্কয়ার হাসপাতালের মেডিকেল ডিরেক্টরডা.মির্জা নাজিমুদ্দিন সাংবাদিকদেরজানান,জরুরি বিভাগে কার্ডিয়াক কনসালট্যান্ট মুনসুর মাহবুবের উপস্থিতিতে ১৫ থেকে ২০ মিনিট ধরেআইয়ুব বাচ্চুর হৃৎস্পন্দনফিরিয়ে আনার চেষ্টা করা হয়। কিন্তু সেই চেষ্টাব্যর্থ হয়। সকাল ৯টা ৫৫ মিনিটে আইয়ুব বাচ্চুকে মৃত ঘোষণা করা হয়।
বেলা সাড়ে ১১টারদিকেমির্জা নাজিমুদ্দিন বলেন, ‘আমরাআইয়ুব বাচ্চুকে মৃত অবস্থাতেই পাই। তার পরেও আমাদের স্পেশাল টিমতাঁকে ফিরিয়ে আনার সব রকমের চেষ্টা করে। তিনি বহুদিন ধরে হৃদ্রোগে ভুগছিলেন। তাঁর হার্টে কার্ডিয়োমাইপ্যাথি ছিল। ২০০৯ সালে তাঁরহার্টে একটি স্টেন্টপরানো হয়।’
মির্জা নাজিমুদ্দিন জানান, তিন সপ্তাহ আগে আইয়ুব বাচ্চু স্কয়ারহাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। তাঁর হৃদ্যন্ত্রের কার্যকারিতা ছিল ৩০শতাংশ, যেখানে একজন সুস্থ মানুষের থাকে ৭০ শতাংশ। এ জন্যই বারবার তাঁকে হাসপাতালেভর্তি হতে হতো। হার্টের কার্যকারিতা বন্ধহয়ে যাওয়ার কারণে তাঁর মুখ থেকে পানির মতো ফেনা বের হচ্ছিল।
বাংলা ব্যান্ডসংগীতেরইতিহাসেরএই কিংবদন্তি শিল্পী ১৯৬২সালের ১৬ আগস্টচট্টগ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তাঁর মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেনবামবার নেতারা।
ব্যান্ডতারকা লাবু রহমান বলেছেন,আইয়ুববাচ্চু ছিলেন একজন শিক্ষক। আমাদেরদেশে ব্যান্ডসংগীতে এ রকম শিক্ষক নেইবললেই চলে। তাঁর মৃত্যুতে আমরা গভীরভাবে শোকাহত।আমরা সবাই তাঁকেমিস করব।’
সূত্র: প্রথম আলো

মোহাম্মদ ফরিদ,কক্সবাজার থেকে: রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে বৈধ কাগজপত্র বিহীন আন্তর্জাতিক দাতা সংস্থার হয়ে কাজ করছিলেন এমন ১৬ জন বিদেশি নাগরিককে আটক করে র্যাব-৭। ১৯ এপ্রিল বৃহস্পতিবার বিকেলে একটি যৌথ চেকপোস্টে...

ফেসবুকে আমাদের সাথে থাকুন



L0go

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

 
Shares